Hindusthan Samachar
Banner 2 सोमवार, नवम्बर 19, 2018 | समय 21:15 Hrs(IST) Sonali Sonali Sonali Singh Bisht

দীপাবলির রাতে গুয়াহাটির বিভিন্ন এলাকায় আগুন, ভস্মীভূত বহু বাড়ি

By HindusthanSamachar | Publish Date: Nov 8 2018 3:45PM
দীপাবলির রাতে গুয়াহাটির বিভিন্ন এলাকায় আগুন, ভস্মীভূত বহু বাড়ি
গুয়াহাটি, ৮ নভেম্বর (হি.স.) : গোটা রাজ্য দীপাবলির আনন্দে যখন মাতোয়ারা, তখন গুয়াহাটি মহানগর-সহ রাজ্যের বিভিন্ন প্ৰান্তে সংঘটিত অগ্নিকাণ্ডে সংশ্লিষ্ট এলাকার সব উচ্ছ্বাস ম্লান হয়ে গেছে। শোণিতপুরের গহপুর, যোরহাট, মরিয়নি, গোলাঘাটের বোকাখাত, মরিগাঁওয়ের পাশাপাশি গুয়াহাটির ধীরেনপাড়া, পাণ্ডুর পাণ্ডুর জয়মতীনগরে সংঘটিত অগ্নিকাণ্ডে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। বুধবার পাণ্ডুর জয়মতীনগর এলাকায় আতসবাজি থেকে আগুন লেগে চারটি বসতঘর সম্পূর্ণ ভস্মীভূত হয়ে গেছে। বসতঘরগুলির সবটাই ছিল বাঁশবেতে তৈরি। জানা গেছে, খলিলুর রহমান নামের এক ব্যক্তির ৪০টি ঝুপড়ি ঘরে ভাড়া থাকতেন কয়েকজন। আগুন লাগার খবর পেয়ে অগ্নিনির্বাপক বাহিনী দুটি ইঞ্জিন নিয়ে অকুস্থলে পৌঁছে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।। স্থানীয় অধিবাসীরা বলেছেন, দমকল বাহিনীর তৎপরতায় আরও বড় ক্ষতি থেকে রক্ষা পেয়েছে গোটা জয়মতীনগর। স্থানীয়দের মতে, কয়েকটি বালক সেখানে বাজি পোড়াচ্ছিল। তা থেকেই আগুনের সূত্রপাত। এদিকে মহানগরের বৰ্ষাপাড়ায় সংঘটিত অগ্নিকাণ্ডে ২০টি বসতবাড়ি পোড়ে ভস্ম হয়ে গেছে। বৰ্ষাপাড়া রাঘুনাথপথেও আতসবাজি থেকে অগ্নিকাণ্ডের সূচনা বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। এ ঘটনায় বহু লক্ষ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানানো হয়েছে। তাছাড়া ধীরেনপাড়ায়ও গত রাতে বিধ্বংসী অগ্নিকাণ্ডে পাঁচটি বাড়ি সম্পূর্ণ পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। ওই অগ্নিকাণ্ডে ঘৃতাহুতি দিয়েছে পাঁচটি রান্নার গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে। প্রসঙ্গত, কালীপুজোর রাতে কাহিলিপাড়ায় অবস্থিত চতুর্থ আসাম পুলিশ ব্যাটালিয়নের সুইপার কলোনিতে আগুনের লেলিহান শিখায় চোখের নিমেষে জ্বলে ছাই হয়ে গেছে ১৪টির বেশি বাসগৃহ। একটি পরিবারের নগদ প্ৰায় ১২ লক্ষ নগদ টাকা পোড়ে গেছে বলে জানিয়েছেন ভুক্তভোগী। চাকরির অবসরকালীন প্রাপ্ত টাকা তাঁরে বাড়িতে মজুত ছিল। আগুন সেই টাকা পোড়ে গেছে। কলোনির আবসিকদের প্রায় ছয়টি সিলিন্ডার বিস্ফোরণে ভয়ংকর রূপ ধারণ করেছিল আগুন। অগ্নিকাণ্ডের কারণ স্পষ্ট না হলেও অনুমান করা হচ্ছে, দীপাবলির আতসবাজি থেকে অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত। এ ঘটনায় মোট ৫০ লক্ষ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি করা হচ্ছে। হিন্দুস্থান সমাচার / দেবযানী / এসকেডি
image