Hindusthan Samachar
Banner 2 गुरुवार, अप्रैल 25, 2019 | समय 09:20 Hrs(IST) Sonali Sonali Sonali Singh Bisht

কিছু না করলে ভয় পাওয়ার কি আছে, ছত্তিশগড়ে কংগ্রেস-সহ বিরোধীদের খোঁচা প্রধানমন্ত্রীর

By HindusthanSamachar | Publish Date: Feb 8 2019 2:24PM
কিছু না করলে ভয় পাওয়ার কি আছে, ছত্তিশগড়ে কংগ্রেস-সহ বিরোধীদের খোঁচা প্রধানমন্ত্রীর
রায়গড় (ছত্তিশগড়), ৮ ফেব্রুয়ারি (হি.স.): দুর্নীতি ইসু্যতে আবারও কংগ্রেস-সহ বিরোধীদের আক্রমণ করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী| প্রধানমন্ত্রীর কথায়, কিছু না করলে ভয় পাওয়ার কি আছে? কোনও এজেন্সি কারণ ছাড়া কাউকে জিজ্ঞাসাবাদ করে নাকি? সিবিআই ও ইডি ইসু্যতে নরেন্দ্র মোদী সরকারের বিরুদ্ধে ধারাবাহিকভাবে আক্রমণ শানাচ্ছে কংগ্রেস, তৃণমূল কংগ্রেস-সহ বিজেপি-বিরোধী প্রায় প্রতিটি রাজনৈতিক দল| এমতাবস্থায় শুক্রবার ছত্তিশগড়ের রায়গড়ের জনসভা থেকে বিরোধীদের উদ্দেশ্যে প্রধানমন্ত্রী বললেন, ‘আপনাদের এত ভয় কেন? কেউ যদি কিছু না করে থাকেন, তবে ভয় কিসের?’ রায়গড়ের জনসভা থেকে ভূপেশ বাঘেল সরকারকেও আক্রমণ করেছেন প্রধানমন্ত্রী| প্রধানমন্ত্রীর কথায়, ‘ছত্তিশগড়ে যখন নতুন সরকার ক্ষমতায় এসেছিল, আমরাও তখন নতুন সরকারকে অভিনন্দন জানিয়েছিলাম| ভেবেছিলাম ছত্তিশগড়ের উন্নয়নের জন্য নতুন সরকার কিছু একটা করবে| কিন্তু, এখন দেখছি শুধুমাত্র বর্তমান প্রকল্পগুলি বন্ধ করার চেষ্টা করছে এই সরকার|’ কংগ্রেসকে খোঁচা দিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, ‘ক্ষমতায় আসার পর কংগ্রেস সরকার যে দু’টি সিদ্ধান্ত নিয়েছে, সে বিষয়ে আপনাদের অবশ্যই ভাবতে হবে| প্রথমত-ছত্তিশগড় থেকে ‘মোদীকেয়ার’ সরিয়ে দেওয়ার প্রচেষ্টা| দ্বিতীয়ত-সিবিআইকে রাজ্যে ঢুকতে দেওয়া হবে না| কেন এমন সিদ্ধান্ত? আপনাদের এত ভয় কেন? কেউ যদি কিছু না করে থাকেন, তবে ভয় কিসের? কোনও তদন্তকারী সংস্থা বিনা কারণে কাউকে কি জিজ্ঞাসাবাদ করতে পারে?’ কংগ্রেসকে আক্রমণ করে প্রধানমন্ত্রী আরও বলেছেন, ‘কংগ্রেস পরিবারের কোনও না কোনও সদস্যদের বিরুদ্ধেই আদালতে মামলা চলছে| এমনই অবস্থা যে পরিবারের বেশিরভাগ সদস্যই জামিন নিয়ে বাইরে রয়েছেন| অথবা আগাম জামিন নিয়ে রেখেছেন|’ এদিনের জনসভা থেকে কৃষকদের উদ্দেশ্যেও বক্তব্য রাখেন প্রধানমন্ত্রী| প্রধানমন্ত্রীর বার্তা, কেন্দ্রীয় সরকার কৃষকদের জন্য নানা ইতিবাচক পদক্ষেপ করেছে, তাঁদের জীবনে বদল আনার জন্য বিগত সাড়ে চার বছর ধরে কাজ করছে তাঁর সরকার| কৃষকদের বছরে ৬ হাজার টাকা করে ভাতা দিচ্ছে| এ প্রসঙ্গে বিরোধীদের সমালোচনাকে কটাক্ষ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, কৃষক পরিবার এই টাকা দিয়ে নিজেদের ছোট ছোট চাহিদা পূরণ করতে পারবে| এছাড়াও কৃষকদের জন্য ও দেশের দরিদ্র পরিবারের জন্য আয়ুষ্মান ভারত প্রকল্প চালু করেছে| স্বাস্থ্যবীমার সুবিধা সকলের কাছে পৌঁছে যাচ্ছে| গরিব মানুষের মুখে হাসি ফুটছে| হিন্দুস্থান সমাচার/ রাকেশ
लोकप्रिय खबरें
फोटो और वीडियो गैलरी
image