Hindusthan Samachar
Banner 2 मंगलवार, फरवरी 19, 2019 | समय 22:46 Hrs(IST) Sonali Sonali Sonali Singh Bisht

রামপুরহাট হনুমানের আক্রমণে জখম ৩

By HindusthanSamachar | Publish Date: Feb 8 2019 7:43PM
রামপুরহাট হনুমানের আক্রমণে জখম ৩
রামপুরহাট, ৮ ফেব্রুয়ারি (হি.স. ) : ফের হনুমানের আক্রমণে এক আইনজীবী ও দুই বনদফতরের কর্মী জখম হলেন। তবে এখন পর্যন্ত হনুমানকে বাগে আনতে পারেনি বনদফতর। হিমশিম খাচ্ছে তারা। আতঙ্কিত রামপুরহাট মহকুমা আদালতের আইনজীবীরা। দিন কয়েক থেকেই একটি পূর্ণবয়স্ক হনুমান তাণ্ডব চালাচ্ছে বীরভূমের রামপুরহাট আদালত চত্বরে। এখন পর্যন্ত ৯ জন হনুমানের আক্রমণে জখম হয়েছেন। দিন তিনেক থেকে হনুমানটিকে ধরার চেষ্টা করছে বন্দফতর। কিন্তু এখন পর্যন্ত তাদের বাগে আনতে পারেনি। তিনবার ধরা গেলেও ফাঁক গলে পালিয়ে যায়। শুক্রবার সকালে ঘুমপাড়ানি বন্ধুক নিয়ে ঘুরতে দেখা যায় বনদফতরের কর্মীদের। বেলা ১১ টার সময় আদালত চত্বরে হাজির হয় পবন নন্দন। প্রথমে কেকের সঙ্গে ঘুমের ওষুধ দিয়ে তাকে ধরার চেষ্টা করেন বনদফতরের কর্মীরা। বস্তা ছুঁড়ে তাকে ধরেও ফেলে বনদফতরের কর্মীরা। কিন্তু ফাঁক গলে পালিয়ে গিয়ে আইনজীবীদের টেবিলে টেবিলে ঘুরতে থাকে। যাওয়ার সময় বনদফতরের কর্মী শেখ আবদুলের হাতে আঁচর দেয়। এক সময় প্রবীণ আইনজীবী শিব সাধন নসিপুরির টেবিলে বসে। সেখানে তখন চেয়ারে বসেছিলেন শিবসাধানবাবু। তাঁর কানে কামর দিয়ে পালিয়ে গিয়ে পাশেই সংশোধনাগারের প্রাচীরে বসে। এরপর হাটতলায় গিয়ে দাপাদাপি শুরু করে। সেখানে ফের বনদফতরের লোকজন ধরতে গেলে শেখ কালুর হাতে আঁচর দিয়ে পালিয়ে যায়। শিবসাদনবাবু বলেন, “হঠাত আমার টেবিলে এসে কানে কামড়ে পালিয়ে যায়”। সরকারি আইনজীবী সৈকত হাটি বলেন, “কয়েক দিন থেকে হনুমান দাপিয়ে বেড়াচ্ছে আদালত চত্বরে। কিন্তু বাগে আনতে পারছে না বনদফতর। ফলে আইনজীবীরা ভয়ে কাজ করতে পারছে না। এর একটা বিহিত হওয়া প্রয়োজন”। বনদফতরের তুম্বুনি রেঞ্জার শুষেন কর্মকার বলেন, “আমরা বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানাব। কারণ আমাদের গুলির করার কোন নির্দেশ নেই। উর্ধতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশ পেলে সেই ব্যবস্থা নেওয়া হবে”।
लोकप्रिय खबरें
चुनाव 2018
image