Hindusthan Samachar
Banner 2 शुक्रवार, मार्च 22, 2019 | समय 13:46 Hrs(IST) Sonali Sonali Sonali Singh Bisht

বড়জোড়ায় হাতির হানায় মৃত্যু প্রৌঢ়ার, ক্ষুব্ধ গ্রামবাসীদের ক্ষোভের মুখে রেঞ্জার

By HindusthanSamachar | Publish Date: Mar 11 2019 6:45PM
বড়জোড়ায় হাতির হানায় মৃত্যু প্রৌঢ়ার, ক্ষুব্ধ গ্রামবাসীদের ক্ষোভের মুখে রেঞ্জার
বাঁকুড়া, ১১ মার্চ (হি. স.) : হাতির হানায় এক মহিলার মৃত্যুকে কেন্দ্র করে ব্যাপক উত্তেজনা ছড়ায় বাঁকুড়ার বড়জোড়ার সাহার জোড়া গ্রামে ।স্থানীয় রেঞ্জার ঘটনাস্থলে হাজির হলে তাকে ‌ ঘিরে ধরে বিক্ষোভ দেখান স্থানীয় বাসিন্দারা । সোমবার সকাল সাড়ে পাঁচটা নাগাদ প্রৌঢ়া সন্ধ্যা ঘোষ(৬১,) বাড়ীর সামনে এক মন্দিরের সামনে গ্রামীন রীতি অনুযায়ী গোবর মারুলী দিচ্ছিলেন সেই সময় এক দাতাঁল হাতি এসে তাকে শুড়ে পেচিয়ে আছড়ে মারে, ওপাযে় করে পিষে দেয় ।তাকে সঙ্গে সঙ্গে বড়জোড়ায় সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় ।সেখানে তাকে মৃতবলে ঘোষণা করা হয় ।এই ঘটনায় সারা এলাকা জুড়ে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে ।খবর পেয়ে এলাকার রেঞ্জার রঞ্জিত মাল ঘটনাস্থলে হাজির হন ।তাকে সামনে পেয়ে উত্তেজিত জনতা ঘিরে ধরে বিক্ষোভ দেখান ।তিনি জনতাকে শান্ত করতে গিয়ে বাড়ির বাইরে না বেড়ানোর উপদেশ দেন তখন জনতা ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন ।স্থানীয় গ্রামবাসীদের বক্তব্য বন দফতরের উদাসীনতায় হাতির হানা হচ্ছে, প্রান যাচ্ছে, ফসলের ক্ষতি হয়েছে, বাড়ি ঘর নষ্ট হচ্ছে । সম্প্রতি বেলিয়াতোড়ের ও বড়জোড়ার জঙ্গল লাগোয়া এলাকায় স্থানীয় হাতির আনাগোনা শুরু হয়েছে ।প্রায় প্রতিদিনই তারা গ্রামে হানা দিয়ে ধান, চাল, মুদিখানার দোকান ভেঙে, বাড়ী ঘর ভেঙে যা খাবার পাচ্ছে তাই খেয়ে পালাচ্ছে। মৃত মহিলার পুত্র উজ্বল ঘোষ বলেন প্রতিদিনের অভ্যাস মত মা এদিন সকালে মন্দিরে মারুলী দিতে গিয়েছিলেন তখনই হাতি এসে মাকে শুড়ে পেঁচিয়ে আছড়ে মারে । রেঞ্জারকে গ্রামবাসীরা ঘিরে রেখেছে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে ।তারা রেঞ্জারকে উদ্ধার করে ।এই ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করে হাতি সমস্যা নিয়ে আন্দোলন রত সংগ্রামী গণ মঞ্চের সম্পাদক শুভ্রাংশু মুখোপাধ্যায় বলেন আর কত মানুষের প্রাণ গেলে বন দফতরের টনক নড়বে? তিনি বলেন ময়ূর ঝর্না প্রকল্পে হাতি গুলিকে পাঠিয়ে দিলে সমস্যার সমাধান হবে কিন্তু সে পদক্ষেপ নেই । স্থানীয় সিপিএম নেতা সুজয় চৌধুরী বলেন হাতি সমস্যা সমাধানে সরকার সচেষ্ট নয় বলে এভাবে প্রাণ হানি থেকে ফসলের ক্ষতি হচ্ছে ।তৃণমূলের ব্লক সভাপতি অলোক মুখোপাধ্যায বলেন হাতি সমস্যা সমাধানে আমরা দলীয় ভাবে সরকারের কাছে আবেদন করেছি ।রেঞ্জার রঞ্জিত মাল বলেন মানুষের ক্ষোভ থাকা স্বাভাবিক, আমরা হূলা পার্টির সাহায্যে নিয়মিত ভাবে হাতি গুলিকে জঙ্গলে ফেরত পাঠানোর ব্যবস্থা করি, কিন্তু হাতি মাঝে মাঝেই লোকালয়ে চলে আসে ।তিনি বলেন সরকারী নিয়ম অনুযায়ী মৃতার পরিবার চার লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ পাবেন । হিন্দুস্থান সমাচার / সোমনাথ
लोकप्रिय खबरें
फोटो और वीडियो गैलरी
image