Hindusthan Samachar
Banner 2 शुक्रवार, अप्रैल 19, 2019 | समय 06:21 Hrs(IST) Sonali Sonali Sonali Singh Bisht

বিজেপির ভয়ে পাকপ্রধান-প্রেমী সিধুকে নিয়ে এলেও দিল্লি দূরস্ত কং প্রার্থী সুস্মিতার : হিমন্ত

By HindusthanSamachar | Publish Date: Apr 13 2019 9:29PM
বিজেপির ভয়ে পাকপ্রধান-প্রেমী সিধুকে নিয়ে এলেও দিল্লি দূরস্ত কং প্রার্থী সুস্মিতার : হিমন্ত
শিলচর (অসম), ১৩ এপ্রিল (হি.স.) : বিজেপির ভয়ে নার্ভাস শিলচরের কংগ্রেস প্রার্থী সুস্মিতা দেব। কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সভাপতি রাহুল গান্ধীর সভার পর নিয়ে এসেছিলেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বন্ধু নবজিৎসিং সিধুকে। এতেও সুস্মিতার ভয় কাটেনি। তাই নিরুপায় হয়ে দ্বারস্থ হয়েছেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী (ভদরা)-র। তবুও দিল্লি দূরঅস্ত্। মন্তব্য বিজেপির হেভিওয়েট নেতা তথা অসমের অর্থ-স্বাস্থ্য ও পূর্তমন্ত্রী তথা নেডা-র আহ্বায়ক ড. হিমন্তবিশ্ব শর্মার। আজ শনিবার বড়খলার লেবুরবন্দে বিজেপি-র শিলচরের প্রার্থী রাজদীপ রায়ের প্রচার অভিযানে এসে এক নির্বাচনি সভায় ভাষণ দিতে গিয়ে হিমন্তবিশ্ব বলেন, ভোটের আগেই কংগ্রেস প্রার্থী সুস্মিতা দেব পরিস্থিতি আঁচ করতে পেরে নার্ভাস হয়ে পড়েছেন। এর প্রধান কারণ হচ্ছে গত ৫ বছর সুস্মিতা শিলচর লোকসভা এলাকার জন্য কিছুই করতে না পারা। সাধারণ মানুষ এখন এতো বোকা নন। কাজের হিসাব চাইলে উত্তর দেওয়ার কিছুই নেই উনার কাছে। নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল প্রসঙ্গে কংগ্রেসকে এক হাত নিয়ে হিমন্তবিশ্ব বলেন, তাঁদের নেতা দিল্লিতে এক কথা বলেন, দিশপুরে আরেক কথা আবার শিলচর এসে অন্য কথা বলেন। তাঁদের কোনও সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষমতা নেই। বিপরীতে নাগরিকত্ব বিল নিয়ে বিজেপি সকল শরণার্থীদের পক্ষে আগেও যেমন ছিল, বর্তমানেও আছে এবং অদূর ভবিষ্যতেও থাকবে। এদিন ড. শর্মা আরও বলেন, দিল্লিতে বিজেপি-র সরকার, রাজ্যেও বিজেপি সরকার, স্থানীয় বিধায়কও বিজেপির, মাঝখানে অর্থাৎ এমপি-তে ''পাকিস্তান'' রেখে কোনও লাভ নেই। উল্টো উন্নয়ন বাধাগ্রস্ত হবে। তাই বিজেপি প্রার্থী রাজদীপ রায়কে বিজয়ী করার সংকল্প নিতে হবে সকলকে। রাজদীপকে ভোট দেওয়ার আবেদন জানিয়ে তিনি রাজ্য সরকার কর্তৃক বাস্তবায়িত ও ভবিষ্যতের বেশ কিছু পদক্ষেপের কথা উল্লেখ করে বলেন, কংগ্রেস আমলে তরুণ গগৈ সরকার মহিলা আত্মসহায়ক দলকে মাত্র পাঁচ হাজার টাকা দিত। ভাগবাটোয়ারার অঙ্কে এক একজনের ভাগে কত টাকা পড়ত। এবার বিজেপি সরকার প্রথমেই এই অনুদানের পরিমাণ বাড়িয়ে ২৫ হাজার টাকা করেছে। এর পরের ধাপে ৫০ হাজার টাকা এবং তৃতীয় ধাপে ১ লক্ষ টাকা মিলে মোট ১ লক্ষ ৭৫ হাজার টাকা করা হয়েছে। রাজ্য সরকার আরও সিদ্ধান্ত নিয়েছে, আগামী ১৫ আগস্টের পর থেকে রেশনের দোকানে ১৫ টাকা করে প্রতি কিলোগ্রাম চিনি এবং ২০ টাকা করে কেরোসিন দেওয়া হবে। এছাড়া অসহায় বিধবাদের স্বামী মারা যাওয়ার এক মাসের মধ্যে এককালীন ২০ হাজার টাকা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিজেপি সরকার। এ সম্পর্কিত বিল রাজ্য বিধানসভায় পাস হয়ে গেছে বলে জানান অর্থমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্বশর্মা। পূর্ত দফতরের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী হিমন্তবিশ্ব এদিন প্রতিশ্রুতি দেন, আগামী বিধানসভা নির্বাচনের আগে বড়খলার সকল গুরুত্বপূর্ণ রাস্তা পাকা করা হবে। এবং ডলু-ময়নারবন্দ মহাসড়ক থেকে একটি দুই লেনের সড়ক করা হবে। যার পরিকল্পনাও হাতে নেওয়া হয়েছে ইতিমধ্যেই। এদিন রাজ্য এবং কেন্দ্রীয় সরকারের বিভিন্ন জনমুখি উন্নয়নমূলক কাজের বিস্তৃত বিবরণ তুলে ধরে একশো শতাংশ নিশ্চিত হয়ে বলেন, কেন্দ্রে পুনরায় বিজেপি সরকার গঠন হবে এবং শিলচর আসনে দলীয় প্রার্থী রাজদীপ রায় জয়ী হবেন বিপুল ভোটের ব্যবধানে। বড়খলার বিধায়ক কিশোর নাথ বলেন, এবারের নির্বাচনে রাজদীপ রায় বড়খলা থেকে ২৫ হাজারেরও অধিক ভোটের ব্যবধানে এগিয়ে যাবেন। তিনি দাবি করেন, একমাত্র বিজেপি সরকার হওয়ার জন্যই বড়খলার উন্নয়ন দ্রুতগতিতে এগিয়ে যাচ্ছে। বিজেপির জেলা সভাপতি কৌশিক রাই বলেন, কংগ্রেসের অপশাসনের বিরুদ্ধে সাধারণ মানুষ গর্জে উঠেছেন। তাই ব্যাপক ব্যবধানে বিজেপি প্রার্থীর জয় নিশ্চিত। বক্তব্য রাখেন বড়খলা মণ্ডল বিজেপি সভাপতি বিশ্বজিৎ রায়-সহ অনেকেই। এদিন স্বাস্থ্যমন্ত্রী কাটিগড়া বিধানসভার কালাইনেও এক নির্বাচনি অনুষ্ঠানে অংশ নিয়ে কংগ্রেসকে উৎখাত করার ডাক দেন। এছাড়া সন্ধ্যায় শিলচর ইটখলার খেলার মাঠ থেকে এক বাইক রেলি করার পাশাপাশি রংপুর থেকে শহরের প্রধান প্রধান সড়কে বিশাল পদযাত্রায় অংশ নিয়েছেন হিমন্তবিশ্ব শর্মা। বিজেপির থিম সং-সহ পদযাত্রায় কমপক্ষে ৫০ হাজার জনতা অংশগ্রহণ করেছেন। হিন্দুস্থান সমাচার / পুলক / এসকেডি/ সঞ্জয়
लोकप्रिय खबरें
फोटो और वीडियो गैलरी
image