Hindusthan Samachar
Banner 2 शुक्रवार, अप्रैल 19, 2019 | समय 06:28 Hrs(IST) Sonali Sonali Sonali Singh Bisht

দ্বিতীয় দফায় ভোটে রাজ্যে থাকবে ১৯৪ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী

By HindusthanSamachar | Publish Date: Apr 14 2019 8:01PM
দ্বিতীয় দফায় ভোটে রাজ্যে থাকবে ১৯৪ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী
কলকাতা, ১৪ এপ্রিল (হি.স): দ্বিতীয় দফায় ভোটের আগে এই রাজ্যে কেন্দ্রীয় বাহিনীর সংখ্যা বাড়ছে । কথা ছিল ১৩৪ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী থাকবে । কিন্তু, রবিবার রাজ্যের মুখ্য নির্বাচনী অফিসারের অফিস সূত্রে জানা গেছে, ১৮ তারিখের আগেই আরও ৬০ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী আসবে এই রাজ্যে । ফলে মোট কেন্দ্রীয় বাহিনীর সংখ্যা দাঁড়াবে ১৯৪ কোম্পানি । কেননা, পশ্চিমবঙ্গে ভোট গ্রহণ কেন্দ্রের সংখ্যা বেড়েছে । আর তাই নিরাপত্তা ব্যবস্থা আঁটসাট করতে তার সঙ্গেই পাল্লা দিয়ে বাড়ছে কেন্দ্রীয় বাহিনীর সংখ্যা । দ্বিতীয় দফায় ভোট হবে ১৮ এপ্রিল । জলপাইগুড়ি, দার্জিলিং, এবং রায়গঞ্জ লোকসভা কেন্দ্রে । তৃতীয় দফায় ভোট হবার কথা ২৩ এপ্রিল, মালদা উত্তর, মালদা দক্ষিণ, মুর্শিদাবাদ, বালুরঘাট, জঙ্গিপুরে । প্রথম দফার থেকে দ্বিতীয় দফার ভোটে ব্যবহার করা হবে প্রায় ২০০ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী । গত বৃহস্পতিবারই ভোট মেটার পরেই নির্বাচন কমিশন জানিয়েছিল, দ্বিতীয় দফার ভোটের আগে রাজ্যে আরও ২৫ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী আসছে । শুক্রবার নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে, এই ২৫ কোম্পানির পর আরও ২৬ কোম্পানি আধাসেনা পাঠানো হচ্ছে পশ্চিমবঙ্গে । অর্থাৎ, দ্বিতীয় দফার নির্বাচনে মোট ১৩৪ কোম্পানি আধাসেনা মোতায়েন থাকবে দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি ও রায়গঞ্জ লোকসভা কেন্দ্রে । কিন্তু রবিবার সিদ্ধান্ত হয় আরও ৬০ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী বাড়িয়ে সংখ্যাটা হবে ১৯৪ কোম্পানি । প্রথম দফার ভোটের পর গত ১১ এপ্রিল বৃহস্পতিবার কলকাতায় ফিরে স্পেশাল পুলিশ অবজার্ভার বিবেক দুবে দাবি করেছিলেন, ভোট শান্তিপূর্ণ হয়েছে, সহযোগিতা করেছে রাজ্য পুলিশ । কিন্তু রাজ্য পুলিশে যে সম্পূর্ণ আস্থা নেই, সেটাই যেন আরও একবার চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল দ্বিতীয় দফা ভোটের আগে কমিশনের বাহিনীর সংখ্যা বাড়ানোর সিদ্ধান্ত । নির্বাচন কমিশন সূত্রে খবর, বিরোধীদের দাবি মেনেই বাড়ানো হচ্ছে বাহিনী । ১৮ এপ্রিল, বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় দফায় ভোট । ওই দিন পাহাড়ে দার্জিলিং লোকসভা কেন্দ্রে ভোট । সেইসঙ্গে সমতলে জলপাইগুড়ি ও রায়গঞ্জে ভোট । উল্লেখ্য, দার্জিলিং লোকসভা কেন্দ্রটি নিয়ে যুযুধান তৃণমূল-বিজেপি দু’পক্ষই । সেইসঙ্গে ২০১৭-য় মোর্চা বিক্ষোভে উত্তপ্ত দার্জিলিংয়ের ছবি এখনও টাটকা । গোর্খাল্যান্ড ইস্যুতে মোর্চার বিক্ষোভে আগুন জ্বলেছিল পাহাড়ে । তারপর তিস্তা দিয়ে অনেক জল গড়িয়েছে । মোর্চার নেতৃত্বে হাতবদল ঘটেছে । কিন্তু, লোকসভা ভোটের ঢাকে কাঠি পড়তেই ফের গোর্খা ভাবাবেগকে উসকে দেওয়ার চেষ্টা শুরু করে গুরুংপন্থী মোর্চা সদস্যরা । ইতিমধ্যেই কালিম্পংয়ের সভা থেকে পৃথক গোর্খাল্যান্ডের পালে হাওয়া দেন বিজেপি সভাপতি অমিত শাহও । এই পরিস্থিতিতে ভোটে পাহাড়ে নিরাপত্তা ব্যবস্থা আঁটসাট করতে উদ্যোগী জাতীয় নির্বাচন কমিশন । প্রথম দফার ভোটে ব্যবহার করা হয়েছে ৮৩ কোম্পানি বাহিনী । দ্বিতীয় দফার ভোটের আগে রাজ্য আসছে আরও কেন্দ্রীয় বাহিনী । অর্থাত্, দ্বিতীয় দফার ভোটের আগেই রাজ্যে মোতায়েন করা হবে মোট ১৯৪ কোম্পানি বাহিনী । এরমধ্যে স্ট্রং রুম, ভোটের পরবর্তী হিংসার জন্য কিছু বাহিনী থাকবে কোচবিহার ও আলিপুরদুয়ারে । বাকি বাহিনী ব্যবহার করা হবে দ্বিতীয় দফায় । এখন ৩ কেন্দ্র মিলিয়ে দ্বিতীয় দফার ভোটে মোট বুথ সংখ্যা ৫৩৯০টি । দু-একদিনের মধ্যেই অতিরিক্ত বাহিনী চলে আসবে । শুরু হয়ে যাবে টহলদারি । হিন্দুস্থান সমাচার / হীরক / কাকলি
लोकप्रिय खबरें
फोटो और वीडियो गैलरी
image