Custom Heading

চোট-আঘাত থেকে খেলোয়াড়দের রক্ষা করতে বদল হচ্ছে হকির নিয়মের
লোজানে, ১৩ মে (হি. স.) : পেনাল্টি কর্নার আটকাতে গিয়ে বাড়ছে চোট-আঘাত। চোট-আঘাত থেকে খেলোয়াড়দের রক্ষা
 বদল হচ্ছে হকির নিয়মের


লোজানে, ১৩ মে (হি. স.) : পেনাল্টি কর্নার আটকাতে গিয়ে বাড়ছে চোট-আঘাত। চোট-আঘাত থেকে খেলোয়াড়দের রক্ষা করতে বদল হচ্ছে হকির নিয়মের। সম্ভবত হকিতে কয়েক দশক ধরে চলে আসা পেনাল্টি কর্নার আর থাকবে না।

পেনাল্টি কর্নার হকি মাঠে গোল করার অন্যতম হাতিয়ার। প্রতিপক্ষের ‘ডি’-র মধ্যে বিপক্ষের খেলোয়াড়ের পায়ে বল লাগলে বা গোলমুখী খেলোয়াড়কে অবৈধ ভাবে বাধা দেওয়া হলে পেনাল্টি কর্ণার দেওয়া হয়। খেলোয়াড়দের জন্য পেনাল্টি কর্নার বিপজ্জনক বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। কারণ গোল পাওয়ার জন্য প্রতি নিয়ত পেনাল্টি কর্নারের কৌশল বদল করছে দলগুলি। বিপক্ষের তীব্র গতির শট আটকাতে সেই বলের দিকেই দৌড়ে যাচ্ছেন রক্ষণ ভাগের খেলোয়াড়রা। তাতেই বাড়ছে চোট-আঘাত। তাই খেলোয়াড়দের নিরাপত্তাকে গুরুত্ব দিয়ে পেনাল্টি কর্নার তুলে দেওয়ার কথা ভাবা হচ্ছে। এক দম তুলে না দেওয়া হলেও নিয়ম বদল হওয়া একরকম নিশ্চিত

‘ফিউচার অব দ্য পেনাল্টি কর্নার’ বা পেনাল্টি কর্নারের ভবিষ্যত শীর্ষক একটি প্রকল্প নিয়েছে আন্তর্জাতিক হকি ফেডারেশন (এফএইচআই)। বিভিন্ন দেশের হকি সংস্থা, খেলোয়াড় এবং বিশেষজ্ঞদের থেকে মতামত চেয়েছে এফএইচআই। ২০২৪ সালের প্যারিস অলিম্পিক্স পর্যন্ত অবশ্য বর্তমান নিয়মই বহাল থাকবে। এফএইচআই-এর তরফে বলা হয়েছে, ‘‘আমরা গুরুত্ব দিয়ে পেনাল্টি কর্নারের নিয়ম পরিবর্তন করার কথা ভাবছি। কোনও খেলোয়াড়ের গুরুতর চোট বা দুর্ঘটনা পর্যন্ত অপেক্ষা করা উচিত হবে না।’’ নতুন সিদ্ধান্ত হবে সব দেশের হকি সংস্থা, বিশেষজ্ঞ এবং খেলোয়াড়দের আলোচনা এবং মতামতের ভিত্তিতেই।–হিন্দুস্থান সমাচার/ কাকলি


 rajesh pande